ভাঙ্গুড়ায় প্রার্থীর বিরুদ্ধে তদন্ত করছে বিএনপি

0
215

পাবনার কণ্ঠ ডটকম:

পাবনার ভাঙ্গুড়া পৌরসভায় মেয়র পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত আওয়ামী লীগের প্রার্থী।নির্বাচনে  বিএনপির প্রার্থীর মনোনয়নপত্র তথ্য গরমিলের কারনে প্রার্থিতা বাতিল হয়। এ ঘটনাকে ‘রহস্যজনক’ আখ্যা দিয়ে স্থানীয় নেতারা কেন্দ্রের কাছে চিঠি দিয়েছেন। এতে ওই প্রার্থীর বিরুদ্ধে ক্ষমতাসীন দলের সঙ্গে আঁতাতের অভিযোগ করেছেন তারা। বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়ে তদন্ত করছে বিএনপি। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে। দলীয় সূত্রে জানা গেছে এসব তথ্য।

এ পৌরসভার তৃণমূল নেতারা জানান, কেউ কেউ দলীয় মনোনয়নে নির্বাচনে অংশ নেয় আবার শেষ মুহূর্তে ভোট থেকে নিজেকে প্রত্যাহার করেন। অনেকেই আছে মনোনয়নপত্র বাতিল হলে তার বিরুদ্ধে আপিলও করে না। এসব চলতে পারে না। ‘হামলা-মামলার ভয়ভীতি প্রদর্শন’ এগুলোকে তারা অজুহাত হিসেবে দাঁড় করায়। প্রতিটি নির্বাচনেই বিএনপির নেতাকর্মীরা ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীদের হাতে নির্যাতন, হামলা-মামলার শিকার হচ্ছেন। এটা নতুন কিছু নয়। তাই বলে দলীয় মনোনয়ন নিয়ে নির্বাচনে থাকবে না। আসলে তারা ক্ষমতাসীন দলের কাছ থেকে আর্থিক সুবিধা নিয়ে ধানের শীষের মনোনয়ন নিয়েছেন। পরে মনোনয়নপত্রে ইচ্ছে করে ভুল তথ্য দিয়েছে যেন বাতিল হয়ে যায়। তৃণমূলের নেতারা মনে করেন, এর সঙ্গে তার ব্যাপারে যারা সুপারিশ করেছেন সেই নেতারাও জড়িত। এটি পূর্ব পরিকল্পনা করেই হয়েছে। অবশ্য প্রার্থী তার বিরুদ্ধে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

বিএনপির একজন নীতিনির্ধারক জানান, এ পৌরসভায় বিএনপি প্রার্থীদের ভয়ভীতি দেখানো হয়েছে বলে একটি অজুহাত দাঁড় করানো হয়েছে। কিন্তু সব জেনেশুনেই তো এ নির্বাচনে বিএনপি অংশ নিচ্ছে। তাহলে এমন প্রার্থীকেই পৌর ও জেলার নেতারা সুপারিশ করতেন যারা ভয়ভীতির ঊর্ধ্বে উঠে নির্বাচনে অংশ নিতেন। প্রতিটি পৌরসভায় দলের তো একাধিক প্রার্থী ছিলেন। নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী নেই যা তৃণমূল নেতাদের কাছে খারাপ বার্তা গেছে। এতে দলের ক্ষতি হয়েছে। তদন্ত করে অভিযোগ প্রমাণিত হলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

জানতে চাইলে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর যুগান্তরকে বলেন, এ প্রার্থীর বিষয়টি কেন্দ্র খতিয়ে দেখবে।

কারও সঙ্গে আঁতাত কিংবা টাকার লেনদেনের অভিযোগ সঠিক নয় বলে দাবি করেছেন ভাঙ্গুড়া থানা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আবদুল কাদের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here